Saturday , 30 May 2020
শিরোনাম
লোকলজ্জায় খাদ্যসামগ্রী নিতে না আসা নাগরিকদের জন্য হটলাইন

লোকলজ্জায় খাদ্যসামগ্রী নিতে না আসা নাগরিকদের জন্য হটলাইন

করোনাভাইরাসের সংক্রমণরোধে ছুটির কারণে কর্মহীন হয়ে পড়েছে নিম্ন আয়ের মানুষ। অনেকের বন্ধ হয়ে গেছে আয়ের পথ। এই অবস্থায় সরকারসহ বিভিন্ন সংস্থা থেকে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করা হচ্ছে হতদরিদ্র, নিম্ন আয়ের মানুষদের মাঝে। কিন্তু এমনও অনেক মানুষ আছেন যারা লোকলজ্জার ভয়ে খাদ্যসামগ্রী নিতে আসতে পারেন না।

এই সব মানুষের জন্যই হটলাইন চালু করেছে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন (ডিএসসিসি)। হটলাইনে দেয়া নির্ধারিত নম্বরে ফোন করলেই সময়মতো বাসায় খাদ্য পৌঁছে দেবেন ডিএসসিসির কর্মীরা।

গত ২৮ মার্চ করোনা পরিস্থিতিতে ৫০ হাজার মানুষকে খাওয়ানোর ঘোষণা দেন ডিএসসিসির মেয়র সাঈদ খোকন। এ ঘোষণার পর ডিএসসিসির প্রতিটি ওয়ার্ডে কর্মহীন, হতদরিদ্রের তালিকা করে খাদ্যসামগ্রী সহায়তা কার্যক্রম শুরু করে সংস্থাটি। কিন্তু যারা লোকলজ্জার ভয়ে তালিকায় নাম দিতে আগ্রহী নন কিংবা লাইনে দাঁড়িয়ে খাদ্যসামগ্রী নিচ্ছেন না তাদের কথা ভেবে হটলাইন চালু করেছে ডিএসসিসি।

ডিএসসিসি এলাকার অসহায়দের কেউ খাদ্যসামগ্রী সহায়তা পেতে চাইলে ০১৭০৯-৯০০৭০৩ ও ০১৭০৯-৯০০৭০৪ এ দুটি নম্বর যোগাযোগের জন্য আহ্বান জানিয়েছে সংস্থাটি। সহায়তাপ্রত্যাশী কলদাতাদের তথ্য নিয়ে খাদ্যসামগ্রী পৌঁছে দেয়া হবে নিজ বাসায়।

হটলাইন সেল পরিচালনাকারী ও ডিএসসিসির সিস্টেম অ্যানালিস্ট আবু তৈয়ব রোকন বলেন, মেয়র স্যারের নির্দেশে হটলাইন সার্ভিস চালু করা হয়েছে। আমরা ইতোমধ্যে ৩৬৯ জনকে খাদ্যসামগ্রী পৌঁছে দিয়েছি তাদের বাসায়।

এ বিষয়ে ডিএসসিসির মেয়র সাঈদ খোকন বলেন, মানবিক কারণে আমরা মানুষের পাশে খাদ্যসামগ্রীর সহায়তা নিয়ে দাঁড়াতে উদ্যোগ নিয়েছি। তারই অংশ হিসেবে ইতোমধ্যে প্রতিটি ওয়ার্ডে স্থানীয় কাউন্সিলর ও আঞ্চলিক কর্মকর্তাদের সমন্বয়ে সহায়তা পৌঁছে দেয়া হচ্ছে। কিন্তু এসবের মাঝেও যদি কেউ সহায়তা থেকে বাদ পড়ে বা কেউ তালিকায় নাম না লেখায় অথবা লজ্জা পাচ্ছেন তাদের জন্যই এই হটলাইন সার্ভিসের উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে।