Thursday , 2 July 2020
শিরোনাম
ফারজানা ব্রাউনিয়া: চ্যানেল আইতে নিষিদ্ধ

ফারজানা ব্রাউনিয়া: চ্যানেল আইতে নিষিদ্ধ

জনপ্রিয় উপস্থাপিকা ও সংগঠক ফারজানা ব্রাউনিয়াকে চ্যানেল আইতে নিষিদ্ধ করা হয়েছে। চ্যানেল আইয়ের কার্যালয়ে ফারজানার স্বর্ণ কিশোরীর অফিস ছিল, সেটা গুটিয়ে ফেলা হয়েছে। সে অফিসের সমস্ত স্টাফদের কার্ড সুইস করা হয়েছে। তাঁদের বেতনও স্থগিত করা হয়েছে। সেটা প্রায় এক মাসের উপরে।
চ্যানেল আইয়ের একজন কর্মকর্তা জানিয়েছেন যে, ‘চ্যানেল আইয়ের সম্মান এবং মর্যাদা নষ্ট হয় এমন কোন কিছুর সঙ্গে চ্যানেল আই যুক্ত থাকবে না। সে জন্য ব্রাউনিয়ার কার্যক্রম বন্ধ করা হয়েছে।’
ব্রাউনিয়া এমন ঘটিয়েছে যে চ্যানেল আইয়ের সম্মানহানি হবে, তা জানা যায়নি। অনেকে আঁচ করছেন, ব্রাউনিয়া তৃতীয়বারের মতো বিয়ে করলেন। পাত্র লে. জেনারেল (অব.) চৌধুরী হাসান সারওয়ার্দী। এজনই কি ঘটনা ঘটেছে?
তবে এটা বিয়ের কারণে নয়। গত ১১ অক্টোবর বৈরি আবহাওয়ার কারণে আকাশে উড়তে গিয়ে ইমপ্রেস টেলিফিল্ম লিমিটেডের একটি হেলিকপ্টার বিধ্বস্ত হয়েছে। রাজশাহীর গোদাগাড়ী পৌরসভার লালবাগ এলাকার একটি হেলিপ্যাডে এ দুর্ঘটনা ঘটে। এ দূর্ঘটনায় অল্পের জন্য প্রাণে বেঁচে গেছেন ইমপ্রেস টেলিফিল্ম ও চ্যানেল আইয়ের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) ফরিদুর রেজা সাগর, নজরুল সংগীতশিল্পী ফেরদৌস আরা, স্বর্ণ কিশোরী ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান ও প্রধান নির্বাহী ফারজানা ব্রাউনিয়া। সাগরকে উন্নত চিকিৎসাসেবা দিতে সিঙ্গাপুর নেওয়া হয়েছে। তিনি এখনো সেখানেই আছেন। মাঝে কয়েকদিনের জন্য দেশে ফিরলেও বর্তমানে সিঙ্গাপুরে রয়েছেন। আর এই দুর্ঘটনার পরপরই ব্রাউনিয়াকে চ্যানেল আই থেকে নিষিদ্ধ করা হয়েছে বলে জানা যায়। সেদিনের পর থেকেই চ্যানেল আই ও ব্রাউনিয়ার সম্পর্কের অবনতি হয়। চ্যানেল আইয়ের ‘স্বর্ণকিশোরী’ অনুষ্ঠানের পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান শেষে তারা হেলিকপ্টারে ফিরছিলেন।
উল্লেখ্য, ফারজানা ব্রাউনিয়া চ্যানেল আইয়ে কাজ করেই পরিচিতি পেয়েছেন। তিনি দীর্ঘদিন ধরে সেখানে কাজ করছেন।