Saturday , 30 May 2020
শিরোনাম

করোনায় নতুন করে ‘বুকটা ফাইট্যা যায়’

করোনাভাইরাস প্রতিরোধে জনপ্রিয় ‘বুকটা ফাইট্যা যায়’ গানটি নতুন করে গেয়েছেন শিল্পী মমতাজ। শুধু গানের কথাগুলো বদলে দেওয়া হয়েছে করোনাভাইরাস–প্রতিরোধী নির্দেশনা। শিল্পীর বহুলপ্রচারিত ও জনপ্রিয় গানটিকে কাজে লাগিয়ে করোনা প্রতিরোধে সচেতনতা তৈরি করতে এ উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।

নতুন এ গানে করোনাভাইরাস প্রতিরোধে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা, স্বাস্থ্যসম্মতভাবে হাত ধোয়া, নিশ্বাস-প্রশ্বাস ও হাঁচি-কাশি দেওয়ার নিয়মগুলো সুরে সুরে গেয়েছেন মমতাজ। ব্র্যাকের উদ্যোগে একাত্ম হয়ে গণমানুষকে সচেতন করার উদ্দেশে গানটি করা হয়েছে। আজ মঙ্গলবার প্রকাশিত হবে গানটি।

কোভিড-১৯ মোকাবিলায় ব্র্যাক পরিচালিত জনসচেতনতামূলক প্রচারণা কার্যক্রমে ইতিমধ্যে যুক্ত হয়েছেন শিল্পী কুদ্দুস বয়াতি। তাঁর গাওয়া একটি গান প্রকাশিত হওয়ার পর সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ও গণমাধ্যমে ব্যাপক জনপ্রিয়তা পায়। দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে মাইকে গানটি প্রচারিত হচ্ছে।

মমতাজের গাওয়া নতুন এ গানের কথাগুলো এমন, ‘দেশে ফেরত বন্ধু যখন/ চৌদ্দ দিন বাইরে না গিয়া/ সবার ভালোর কথা ভাইবা একলা রয়/ ঘরে একলা রয়/ মনটা ভইরা যায়/ ও মনটা ভইরা যায়।’ গানটিতে কণ্ঠ দেওয়া প্রসঙ্গে শিল্পী ও সাংসদ মমতাজ বেগম বলেন, ‘বর্তমানে করোনাভাইরাসকে কেন্দ্র করে যে সংকট সৃষ্টি হয়েছে, সেটা মোকাবিলায় এগিয়ে আসা আমাদের কর্তব্য। সাধারণ মানুষকে সম্ভাব্য সব উপায়ে সাহায্য করা আমাদের দায়িত্ব।’

ব্র্যাক ও ব্র্যাক ইন্টারন্যাশনালের কমিউনিকেশনস অ্যান্ড আউটরিচ–বিষয়ক পরিচালক মৌটুসী কবীর এ উদ্যোগ প্রসঙ্গে বলেন, ‘বর্তমানে বিশ্বজুড়ে ছড়িয়ে পড়া এই মহামারির বিরুদ্ধে লড়াইয়ের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ কৌশল হলো ব্যাপক জনসচেতনতা এবং আমাদের দৈনন্দিন অভ্যাস ও আচরণের পরিবর্তন আনা। কোভিড-১৯ মোকাবিলায় বাংলাদেশ সরকারকে সক্রিয় সহযোগিতা দেওয়ার পাশাপাশি ব্র্যাক বিভিন্ন ব্যক্তিমালিকানাধীন প্রতিষ্ঠান ও বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থার সঙ্গে সমন্বিত উদ্যোগ গ্রহণ করছে। করোনাভাইরাস প্রতিরোধের বার্তাগুলোকে, বিশেষ করে ছোট ছোট শহর ও গ্রাম-গঞ্জের মানুষের কাছে পৌঁছে দেওয়ার প্রচেষ্টায় যুক্ত হওয়ায় আমরা মমতাজ এবং কুদ্দুস বয়াতির কাছে গভীরভাবে কৃতজ্ঞ।’

করোনাভাইরাস প্রতিরোধে জনসচেতনতা সৃষ্টির কাজে পৃথক একটি ওয়েবপোর্টাল পরিচালনা ছাড়াও সামাজিক যোগাযোগ ও গণযোগাযোগমাধ্যমগুলোতে নানা ধরনের তথ্যসংবলিত উপকরণ প্রকাশ ও প্রচার করে যাচ্ছে ব্র্যাক। গ্রামগঞ্জে এসব বার্তা মাইকে প্রচার করা হচ্ছে। পাশাপাশি দেশের ১৬টি কমিউনিটি রেডিও নেটওয়ার্কের মাধ্যমেও নিয়মিত সম্প্রচার করা হচ্ছে।